লাইন ধরে নয়ন বন্ডের লাশ দেখালো পুলিশ, মিষ্টি বিতরণ (ভিডিও)

গত কয়েকদিন ধরে দেশজুড়ে শুধু একটাই আলোচনা চলছিল। স্ত্রীর সামনে স্বামীকে খুন। এ নিয়ে উত্তাল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক। রিফাত শরীফের (২২) মৃত্যুর ঘটনায় দেশজুড়ে নিন্দার ঝড় বয়ে যায়। অবশেষে আজ রিফাত শরীফ হত্যাকাণ্ডে প্রধান অভিযুক্ত নয়ন বন্ড (২৫) পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছেন। ভোর সোয়া ৪টার দিকে বরগুনার পুরাকাটা এলাকায় পুলিশের সাথে গোলাগুলির ঘটনা হয় বলে জানা যায়। ঘটনাস্থলে তল্লাশি করে নয়ন বন্ডের গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঘটনাস্থল থেকে একটি পিস্তল, এক রাউন্ড গুলি, দুইটি শর্টগানের গুলির খোসা এবং তিনটি দেশীয় ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করা হয়। গোলাগুলিতে চারজন পুলিশ সদস্যও আহত হয়েছেন এবং তাদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এদিকে নিহত নয়ন বন্ডের মরদেহ দেখতে বরগুনা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে ঢল নেমেছে সাধারণ মানুষের। সেই ঢল সামলাতে বেগ পেতে হচ্ছে পুলিশকেও। পরে লাইনে দাঁড় করে কয়েক হাজার সাধারণ মানুষকে নয়ন বন্ডের মরদেহ দেখার সুযোগ করে দেয় পুলিশ। এ সময় নয়ন বন্ডের মরদেহ দেখতে আসা সাধারণ মানুষের মাঝে মিষ্টি বিতরণ করা হয়।

এদিকে বন্দুকযুদ্ধে নয়ন বন্ডের নিহত হওয়ার খবরে স্বস্তি প্রকাশ করেছেন রিফাত শরীফের বাবা দুলাল শরীফ। প্রধানমন্ত্রী, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানান তিনি তিনি।

অপরদিকে নয়ন নিহত হওয়ার পর বিষয়টি নিয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেছেন রিফাতের স্ত্রী মিন্নি। যদিও ইস্যুটি নিয়ে দু’দিন ধরেই সাংবাদিকদের এড়িয়ে যাচ্ছিলেন তিনি। তবে আজ বলেন, ‘আমি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কাছে চির কৃতজ্ঞ। তাদের কারণেই নয়ন আজ শাস্তি পেল। মিন্নি বলেন, শুধু নয়ন মরলে হবে না, প্রত্যেককে শাস্তি দিতে হবে। ঘটনার সঙ্গে যারা জড়িত এবং পরিকল্পনাকারী সবার শাস্তি চান তিনি।

প্রসঙ্গত, বুধবার (২৬ জুন) বরগুনার কলেজ সড়কে দিনে দুপুরে রিফাত শরীফকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে দুর্বৃত্তরা। এই হামলার ভিডিওচিত্র সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

বুধবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে স্ত্রী মিন্নিকে বরগুনা সরকারি কলেজে নিয়ে যান রিফাত। কলেজ থেকে ফেরার পথে মূল ফটকে নয়ন, রিফাত ফরাজীসহ আরও দুই যুবক রিফাত শরীফের ওপর হামলা চালান। এ সময় ধারালো অস্ত্র দিয়ে রিফাত শরীফকে এলোপাতাড়ি কোপাতে থাকেন তারা। স্থানীয় লোকজন রিফাত শরীফকে গুরুতর আহতাবস্থায় উদ্ধার করে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে রিফাত শরীফের মৃত্যু হয়।

Show More
Back to top button
Close